protichinta
book

পুরনো সংখ্যা দেখতে চাইলে

  • সম্পাদকীয়
  • ১. বৈষম্য ও উন্নয়ন ১৮৯০ সালে প্রকাশিত প্রিন্সিপলস অব ইকোনমিকস বইয়ে আলফ্রেড মার্শাল বলেছেন, কেন একদল লোক সুসংস্কৃত জীবন যাপন করবে আর অন্য এক দল কায়িক শ্রমে খেটে মরবে, এটা অর্থশাস্ত্রের সবচেয়ে মৌলিক প্রশ্ন। এ দেশে মার্শালের পরিচিতি নব্য-ধ্রুপদি অর্থশাস্ত্রের অন্যতম স্থপতি হিসেবে, তবে সেখানেই তাঁর পরিচয় সীমাবদ্ধ নয়। উদারনৈতিক অবস্থানে থেকেই তিনি বিশ্বাস করতেন সমাজতন্ত্রে, ট্রেড ইউনিয়ন আন্দোলনে, নারীশিক্ষা প্রসারে, বৃহত্তর নারীমুক্তিতে, দারিদ্র্যের…বিস্তারিত
  • অর্থনীতি
  • আজিজুর রহমান খান
    ধনী ও দরিদ্র: পরস্পর-সংযোগ ও সহানুভূতিরহিত দুটি জাতি; দুটি স্বতন্ত্র অঞ্চল বা উপগ্রহের অধিবাসীর মতো, পরস্পরের অভ্যাস, ভাবনা ও অনুভূতি সম্পর্কে সম্পূর্ণ অজ্ঞ। বেঞ্জামিন ডিজরেলি (১৮০৪-১৮৮১)   আমাদের কালে বৈষম্যের গতি-প্রকৃতি ও তার কারণ বিশ্লেষণ এই প্রবন্ধের মুখ্য উদ্দেশ্য। বৈষম্য বহুমাত্রিক। এর একটি বিশেষ মাত্রা—জীবনযাত্রার মানের বৈষম্য—আমাদের আলোচনার সীমিত বিষয়বস্তু। অবশ্য জীবনযাত্রার মানের সংজ্ঞাও বহুমাত্রিক। অধুনা সমাজবিজ্ঞানীরা জীবনযাত্রার…বিস্তারিত
  • রাজনীতি
  • আলী রীয়াজ
    বাংলাদেশে গণতন্ত্র সংকটাপন্ন বা সংকটাপন্ন হতে পারে—এ ধরনের কথা আমরা অহরহই শুনে থাকি। দেশের ক্ষমতাসীন ও বিরোধী দলই শুধু নয়, বিশ্লেষক ও সিভিল সোসাইটি বা জনসমাজের সদস্যরা এ ধরনের আশঙ্কা প্রকাশ করে থাকেন। কমবেশি সবাই বলেন যে বাংলাদেশে গণতন্ত্র টেকসই হয়নি বা তার শিকড় গভীরভাবে প্রোথিত নয়। দুই দশকের বেশি সময় ধরে নির্বাচিত সরকার ক্ষমতায় থাকলেও কোনো রকম চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার মতো গণতন্ত্র যে প্রতিষ্ঠিত হয়নি, সেটা সহজেই লক্ষণীয়। গণতন্ত্রের এই সংকট বা সম্ভাব্য…বিস্তারিত
  • রাজনীতি
  • নজরুল ইসলাম
      ১. ভূমিকা বাংলাদেশের জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দেশ ভারত। ভৌগোলিকভাবে তিন দিক থেকে ভারত বাংলাদেশকে ঘিরে আছে। নৃতাত্ত্বিক ও সাংস্কৃতিকভাবেও ভারত ও বাংলাদেশ ঘনিষ্ঠভাবে সম্পর্কিত। ব্রিটিশ শাসনের শেষাবধি এ দুই দেশ একই ইতিহাসের অংশীদার ছিল। বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে সাফল্যের পেছনে ভারতের সমর্থন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে। ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের সুসম্পর্ক সে কারণে খুবই প্রত্যাশিত এবং আবশ্যক। ভারত একটি বৃহত্ দেশ। অর্থনৈতিক সক্ষমতা, জ্ঞান-বিজ্ঞান,…বিস্তারিত
  • অনুস্মৃতি
  • আবু সাঈদ চৌধুরীর সাক্ষাত্কার
     [আবু সাঈদ চৌধুরীর জন্ম ১৯২১ সালের ৩১ জানুয়ারি। তাঁর শৈশব কেটেছে টাঙ্গাইলে। জীবনের নানা পর্যায়ে অনেক গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছেন। ১৯৭১ সালের ১৫ মার্চ ছাত্র হত্যার প্রতিবাদে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য পদ থেকে ইস্তফা দেন। মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে প্রবাসী সরকারের পক্ষে জনমত গড়ে তোলার ব্যাপারে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। ১৯৭২ সালের ১২ জানুয়ারি তিনি বাংলাদেশের দ্বিতীয় রাষ্ট্রপতি হিসেবে শপথ নেন। ১৯৮৭ সালের ২ আগস্ট লন্ডনে তাঁর মৃত্যু হয়। মৃত্যুর…বিস্তারিত
  • অনুস্মৃতি
  • ইয়ান মার্টিন
    [বাংলাদেশের সঙ্গে ইয়ান মার্টিনের সম্পর্ক বেশ পুরোনো। ১৯৭০ সালের ভয়াল ঘূর্ণিঝড়ের সময় তিনি বাংলাদেশে (তখনকার পূর্ব পাকিস্তান) এসেছিলেন। আর ১৯৭১ সালে, আমাদের মুক্তিযুদ্ধ যখন শুরু হচ্ছে, তিনি তখন ফোর্ড ফাউন্ডেশনের হয়ে কাজ করছেন ঢাকায়। ২৫ মার্চের কালরাত্রে ফোর্ড ফাউন্ডেশনের গুলশান অফিসের ছাদে দাঁড়িয়ে নিজের চোখে দেখেছেন পাকিস্তানি সেনাদের হত্যাযজ্ঞ, কারফিউ তুলে নেওয়ার পর ঢাকার নানা স্থানে ঘুরে ঘুরে দেখেছেন সেই বিভীষিকা। কিছুদিনের মধ্যেই চুক্তি…বিস্তারিত
  • বই আলোচনা
  • হাসান ফেরদৌস
    দি ইন্দাস সাগা অ্যান্ড দ্য মেকিং অব পাকিস্তান—আইতাজ আহসান \ সাউথ এশিয়া বুকস \ কলাম্বিয়া, ১৯৯৭ পাকিস্তান: বিটুইন মস্ক অ্যান্ড মিলিটারি—হুসেইন হাক্কানি \ কার্নেগি এন্ডাউমেন্ট ফর ইন্টারন্যাশনাল পিস্ \ নিউ ইয়র্ক, ২০০৫ মেকিং সেন্স অব পাকিস্তান—ফারজানা শেখ \ কলাম্বিয়া ইউনিভার্সিটি প্রেস \ নিউ ইয়র্ক ২০০৯ ১. পাকিস্তানের ইতিহাস নিয়ে সে দেশের পাঠ্যপুস্তকে বিস্তর মিথ্যাচার আছে, এ কোনো নতুন তথ্য নয়। একাধিক পাকিস্তানি গবেষক তথ্যপ্রমাণ হাতে নিয়ে চোখে…বিস্তারিত
  • বই আলোচনা
  • বদরুল আলম খান
      দ্য জিওপলিটিকস অব ইমোশনস: হাউ কালচারস অব ফিয়ার, হিউমিলিয়েশন অ্যান্ড হোপ আর রিশেপিং দ্য ওয়ার্ল্ড—দমিনিক মোইসি \ দ্য বডলি হেড \ লন্ডন, ২০০৯ বিশ্ব জ্ঞানভান্ডারকে বিধৌত করেছে, এমন মননের অন্যতম উত্পত্তিস্থল হিসেবে ফরাসি জাতিকে চিহ্নিত করায় কোনো অতিমাত্রিকতা নেই। কি দর্শন, কি সাহিত্য, কি শিল্পকলা, প্রত্নতত্ত্ব বা স্থাপত্যশিল্প—প্রতিটি অঙ্গনে ফরাসিদীপ্তির ছাপ অলঙ্ঘনীয়। তবে কেবল অবদানের অঙ্ক কষে একে মূল্যায়ন করা শ্রেয় নয়। ভিন্নধর্মী, অপ্রচলিত…বিস্তারিত
  • লে খ ক প রি চি তি
  •   আজিজুর রহমান খান অর্থনীতিবিদ ও গবেষক। ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়ার প্রফেসর অব ইকোনমিকস ইমেরিটাস। গুরুত্বপূর্ণ প্রকাশনা—ইনইকুয়ালিটি অ্যান্ড পোভার্টি ইন চায়না ইন দি এজ অব গ্লোবালাইজেশন (অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি প্রেস, ২০০১); স্ট্র্যাটেজি অব ডেভেলপমেন্ট ইন বাংলাদেশ (ম্যাকমিলান, ১৯৯০); কালেকটিভ এগ্রিকালচার অ্যান্ড রুরাল ডেভেলপমেন্ট ইন সোভিয়েত সেন্ট্রাল এশিয়া (ম্যাকমিলান, ১৯৭৯); দি ইকোনমি অব বাংলাদেশ (ম্যাকমিলান, ১৯৭২)। এ ছাড়া বিভিন্ন জার্নাল…বিস্তারিত
pathok

যোগাযোগের ঠিকানা

সিএ ভবন,
১০০ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,
কারওয়ান বাজার, ঢাকা - ১২১৫।

ফোন: ৮৮০-২-৮১১০০৮১, ৮১১৫৩০৭
ফ্যাক্স - ৮৮০-২-৯১৩০৪৯৬

protichinta kinte chile